kishoreganjnews.com:কিশোরগঞ্জকে জানার সুবর্ণ জানালা

সমকাল সুহৃদ ও আল-খায়ের ফাউন্ডেশনের অন্যরকম ঈদ উপহার



 স্টাফ রিপোর্টার | ১৩ জুন ২০১৮, বুধবার, ৩:১৩ | কিশোরগঞ্জ সদর 


পবিত্র ঈদুল ফিতরকে সামনে রেখে দরিদ্র মানুষের মধ্যে ঈদ-উপহার ও খাদ্য সামগ্রী বিতরণের এক চমৎকার আয়োজন হয়ে গেল আল-খায়ের ফাউন্ডেশন ও সমকাল সুহৃদ সমাবেশের যৌথ ব্যবস্থাপনায়। সুবিধাবঞ্চিত ও অতিদরিদ্র দুই শতাধিক পশ্চাৎপদ নারী-পুরুষের মধ্যে শাড়ি, লুঙ্গি, পোলাও চাল, সেমাই, চিনি দুধ, কিসমিস ও সাবান বিতরণের মধ্য দিয়ে আসন্ন ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি করে নেয়ার এক অন্যরকম আনন্দঘন অনুষ্ঠানই যেন সম্পন্ন হলো।

পবিত্র  রমজানের ২৭তম দিবসে স্থানীয় এস ভি সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় মিলনায়তনে সুহৃদ ও আল-খায়ের ফাউন্ডেশন এই ব্যতিক্রমী অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

কিশোরগঞ্জ সুহৃদের সভাপতি বাদল রহমানের সভাপতিত্বে আয়োজিত ‘সবার জন্য ঈদ’ শীর্ষক এই আনন্দঘন আয়োজনে প্রধান অতিথি ও বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন যথাক্রমে জেলা প্রশাসক মো. সারওয়ার মুর্শেদ চৌধুরী, পুলিশ সুপার মো. মাশরুকুর রহমান খালেদ বিপিএম, জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা শিবির বিচিত্র বড়–য়া, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) তরফদার মো. আক্তার জামীল, বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষিকা শাহনাজ কবীর, আল-খায়ের ফাউন্ডেশনের কান্ট্রি ম্যানেজার তারেক মোহাম্মদ সজীব, ছড়াকার সংসদের সভাপতি জাহাঙ্গীর আলম জাহান, সৈয়দ রেজওয়ানউল্লাহ বাশার প্রমুখ।

স্বাগত বক্তব্যে সমকাল, নিজস্ব প্রতিবেদক সাইফুল হক মোল্লা দুলু বলেন, সমকাল সব-সময় সাধারণ মানুষের পাশে থেকে আর্ত-মানবতার সেবায় কাজ করতে আগ্রহী। তারই ধারাবাহিকাতায় আজকের এই মহতী ও মানবিক উদ্যোগে সমকালও অংশীদার হয়েছে। তিনি আল-খায়ের ফাউন্ডেশনকে কৃতজ্ঞতা জানিয়ে কিশোরগঞ্জে এই ধারা ভবিষ্যতেও অব্যাহত থাকবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

ঈদ সামগ্রীপ্রাপ্ত হোসেনপুর উপজেলার ধনকুঁড়া গ্রামের বাদল মিয়া (৪৫) তার প্রতিক্রিয়ায় বলেন, অভাবে থাইক্যা থাইক্যা ঈদের খুশি কারে কয় হেইডা ভুইল্লা গেছিলাম। আইজ ঈদ করনের কাপড়-চোপড় আর সেমাই-চাউল পাইয়্যা ঈদের খুশি টের পাইতাছি। যারা এইতা দিছে আল্লা হেরার ভালা করুক।

সদর উপজেলার খিলপাড়া গ্রামের আবু সাঈদ কাঞ্চন (৫৩), জোড়াপুকুর পাড়ের নূরজাহান (৪২), শোলাকিয়ার রহমত আলী (৪৫), কটিয়াদী উপজেলার বানিয়াগ্রামের হাদিছা বেগম (৪৮)সহ উপহারপ্রাপ্ত একাধিক নারী-পুরুষ তাদের আনন্দ-উচ্ছ্বাস প্রকাশ করে জানান, ম্যালাদিন পরে আইজ মনে অইতাছে আমরারও ঈদ আছে। এইবার পোলাপাইন লইয়া ভালা-মন্দ খাইতে পারবাম।

জেলা প্রশাসক মো. সারওয়ার মুর্শেদ চৌধুরী প্রধান অতিথির বক্তব্যে বলেন, ইসলাম মানবতার কথা বলে। প্রতিবেশীকে অভুক্ত রেখে নিজে ভালো খাওয়ার শিক্ষা ইসলামে নেই। সুহৃদ এবং আল-খায়ের ফাউন্ডেশন ইসলামের সেই স্পিরিট নিয়ে পবিত্র ঈদুল ফিতরের আগে দরিদ্র নারী-পুরুষের মধ্যে ঈদের আনন্দ বিলিয়ে দেওয়ার জন্য আজ যে উদ্যোগটি বাস্তবায়ন করলো তা অবশ্যই অভিনন্দনযোগ্য। তাদের সবাইকে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানাই।

পুলিশ সুপার মো. মাশরুকুর রহমান খালেদ বিপিএম বলেন, সরকারের এসডিজি প্রোগ্রামকে এগিয়ে নেওয়ার জন্য সরকারের পাশাপাশি বেসরকারি সংস্থাগুলো যদি সমন্বয় রেখে কাজ করে তা হলে দেশ দ্রুত অভীষ্ট লক্ষ্যে পৌঁছুতে পারবে। দৈনিক সমকাল ও আল-খায়ের ফাউন্ডেশন সেই কাজটি দায়িত্বশীলতার সাথে পালন করছে বলে আমি মনে করি। আজকের এই আয়োজনেও তার প্রতিফলন রয়েছে।

জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা শিবির বিচিত্র বড়ুয়া বলেন, নতুন প্রজন্মের ছেলে-মেয়েদের মধ্যে ইন্টারনেট ব্যবহারের প্রবণতা বৃদ্ধি পাওয়ায় তাদের মধ্যে মানবিকতা কমে আসছে। কিন্তু কিশোরগঞ্জ সমকাল সুহৃদের তরুণ কর্মীদের মধ্যে সেই মানবিকতার আবেদন আমি দেখতে পেয়েছি। এই আবেদন সকল তরুণের মধ্যে ছড়িয়ে দিতে পারলে আমরা একটি সুন্দর দেশ পেতে পারি।

অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) তরফদার মো. আক্তার জামীল বলেন, নিজের অংশ থেকে অন্যকে দিতে পারার যে আনন্দ তা পৃথিবীতে বিরল। সেই বিরল আনন্দ লাভের জন্য সমকাল সুহৃদ ও আল-খায়ের ফাউন্ডেশন দরিদ্রদের মুখে একটু হাসির ঝিলিক উপহার দিচ্ছে। এটি আমাদের সবার জন্যই নতুন এক শিক্ষা ও নতুন এক আনন্দ বয়ে  এনেছে।

প্রধান শিক্ষিকা শাহনাজ কবীর আজকের এই চমৎকার আয়োজনের ভেন্যু হিসেবে তার বিদ্যালয়কে বেছে নেওয়ায় তিনি দৈনিক সমকাল ও আল-খায়ের ফাউন্ডেশনকে ধন্যবাদ জানান।

ছড়াকার জাহাঙ্গীর আলম জাহান বলেন, গত বোরো মৌসুমে অকাল বন্যায় হাওরাঞ্চলের ক্ষতিগ্রস্ত মানুষেরা অনেকেই কোরবানি দিতে পারেননি। সমকাল সুহৃদ ও আল-খায়ের ফাউন্ডেশন হাওরবাসীদের মধ্যে কোরবানির গোশত রেঁধে আপ্যায়ন করিয়েছিল। সেই মানবিক আবেদন এখনও অব্যাহত থাকায় আমি ব্যক্তিগতভাবে আনন্দিত ও কৃতার্থ।

এ সময় কিশোরগঞ্জ সুহৃদের সাধারণ সম্পাদক জহিরুল ইসলাম, নাহার, তন্ময়, রুবেল, মোমিন, ওমর ফারুক, সৌরভ, সাইদুর রহমান সাঈদ, অমিত, তোফায়েল

আহম্মেদ তুষার, মুন্না, রিয়ান, রিয়াদ, আদিব, মামুন, শাহীন, অলিক, একরাম, রিয়া প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

দুই-শতাধিক দরিদ্র নারী-পুরুষের মধ্যে পৃথক পৃথক ব্যাগে ঈদ উপহার বিতরণ করা হয়। এক অনাবিল ঈদ আনন্দ নিয়ে সবাই ফিরে যান যার যার ঘরে।




[মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ি নয়। মতামত একান্তই পাঠকের নিজস্ব। এর সকল দায়ভার বর্তায় মতামত প্রদানকারীর]


এ বিভাগের আরও খবর



















সেগুনবাগিচা, গৌরাঙ্গবাজার, কিশোরগঞ্জ-২৩০০
মোবাইল:০ ১৮১৯ ৮৯১০৮৮
kishoreganjnews247@gmail.com
Web: www. kishoreganjnews.com
প্রধান সম্পাদক: আশরাফুল ইসলাম
সম্পাদক: সিম্মী আহাম্মেদ