কিশোরগঞ্জ নিউজ :: কিশোরগঞ্জকে জানার সুবর্ণ জানালা


কোরবানি থেকে বেঁচে যাওয়া মহিষটির ভাগ্যে মৃত্যুই বুঝি লেখা ছিল!


 অজিত দত্ত, অষ্টগ্রাম প্রতিনিধি | ৩১ আগস্ট ২০১৮, শুক্রবার, ৮:৪৭ | অষ্টগ্রাম 


হাওর উপজেলা অষ্টগ্রামের আব্দুল্লাহপুর পশ্চিম পাড়ার রাজা মিয়া, জসিম উদ্দিন, মহি উদ্দিন, টেনা মিয়া, বাবুল মিয়া এবং টিপু সুলতান মিলে একটি মহিল কোরবানি দিতে চেয়েছিলেন। গত ২২ আগস্ট ঈদুল আযহার দিন মহিষটিকে কোরবানি করার সময়েই ঘটে বিপত্তি।

কোরবানির জন্য জবাইয়ের মুহূর্তে মহিষটি সবাইকে শিং দ্বারা আঘাত করে দেয় এক দৌড়। গ্রামের পশ্চিম পাশে নদীর পাড়ের দিকে মহিষটি দৌড়াতে থাকে এবং এক সময়ে হারিয়ে যায়।

নয় দিন পর শুক্রবার (৩১ আগস্ট) সেই মহিষটির দেখা মেলে পার্শ্ববর্তী আব্দুল্লাহপুর দক্ষিণ পূর্ব পাড়ায় নায়েব আলি হাজীর বাড়িতে। ভোর সাড়ে ৫টার দিকে মহিষটি অতর্কিতে হামলা চালিয়ে সেখানে জোসনা বেগম বিশ্বাস (৭০) নামের এক বৃদ্ধ মহিলাকে আহত করে। গুরুতর আহত জোসনা বেগমকে আব্দুল্লাহপুর নতুন বাজারের একটি ফার্মেসিতে প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়ার পর উন্নত চিকিৎসার জন্য তাকে অন্যত্র পাঠানো হয়।

পরে মহিষটিকে ধরতে শুরু হয় এলাকাবাসীর দৌড়ঝাপ। এ সময় মহিষটিকে নিয়ন্ত্রণ করতে গিয়ে আরো কয়েকজন আহত হন। কিন্তু দুর্ভাগ্যজনকভাবে মহিষটিরও আয়ু ফুরিয়ে আসে এবং কিছুক্ষণ পর সেখানেই লুটিয়ে পড়ে মারা যায়।

এলাকার ওয়াসিম কামাল জানিয়েছেন, জোসনা বেগমকে মহিষটি হামলা চালিয়ে আহত করার পর মহিষটিকে নিয়ন্ত্রণ করতে গিয়ে আরো অনেকেই আহত হয়েছেন। কিন্তু এক পর্যায়ে ঘটনাস্থলেই মহিষটি মারা যায়।




[মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ি নয়। মতামত একান্তই পাঠকের নিজস্ব। এর সকল দায়ভার বর্তায় মতামত প্রদানকারীর]

এ বিভাগের আরও খবর