কিশোরগঞ্জ নিউজ :: কিশোরগঞ্জকে জানার সুবর্ণ জানালা


বাবার আসনে রীমাকে প্রার্থী চেয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় আকুতি


 বিশেষ প্রতিনিধি | ৯ জানুয়ারি ২০১৯, বুধবার, ১১:২৩ | সম্পাদকের বাছাই  


প্রয়াত জনপ্রশাসন মন্ত্রী সৈয়দ আশরাফুল ইসলামের একমাত্র সন্তান সৈয়দা রীমা ইসলাম। গত ৩রা জানুয়ারি বাবাকে হারান তিনি। এর আগে ২০১৭ সালের ২৩শে অক্টোবর হারিয়েছেন প্রিয় মা সৈয়দা শিলা ইসলামকে। মাত্র সাড়ে ১৪ মাসের ব্যবধানে মা-বাবার মৃত্যুতে শোকে বিহ্বল রীমা।

বাবা সৈয়দ আশরাফুল ইসলামের মহাপ্রয়াণ থেকে শুরু করে শেষ বিদায়ের প্রতিটি ক্ষণে বাবার ছায়াসঙ্গী হয়ে পাশে ছিলেন রীমা ইসলাম। এই সময়টাতে সব জায়গাতেই বাবার কফিনটাকে আঁকড়ে ধরে রেখেছিলেন তিনি। কখনো বাবাকে নিজের কাছ থেকে আলাদা হতে দেননি।

বাবার কফিন ধরে কেঁদেছেন অঝোরে। প্রিয় বাবার কফিনের পাশে রীমা ইসলামের এই বুক ফাটা আর্তনাদ ছুঁয়ে যায় পুরো বাংলাদেশকে। যে কারণে সোশ্যাল মিডিয়ার ফেসবুক-টুইটারজুড়ে এখন কেবলই রীমা ইসলামের বেদনার্ত মুখচ্ছবি। ফেসবুক-টুইটারের টাইমলাইনে ভাসছে শোকে বিহ্বল রীমা ইসলামের ছবি। যেন কেবল রীমা ইসলাম নয়, তাঁর সাথে কাঁদছে কিশোরগঞ্জ, কাঁদছে বাংলাদেশ।

গত ৩০ ডিসেম্বর অনুষ্ঠিত একাদশ সংসদ নির্বাচনের আগে সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম কিশোরগঞ্জ সদর আসন থেকে টানা চার বার সংসদ সদস্য নির্বাচিত হয়েছিলেন। এবারের নির্বাচনে থাইল্যান্ডের বামরুনগ্রাদ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন থাকা সৈয়দ আশরাফ সশরীরে নির্বাচনী ময়দানে না থেকেও বিপুল ভোটে বিজয়ী হন। কিন্তু শপথ নেয়ার আগেই তিনি সবাইকে কাঁদিয়ে চলে যান না ফেরার দেশে।

রাজনীতির এই মহাকবির চিরবিদায়ে শূণ্য হয়ে পড়লো জাতীয় সংসদের ১৬২ নম্বর আসন, কিশোরগঞ্জ-১। কিশোরগঞ্জ সদর ও হোসেনপুর উপজেলা নিয়ে গঠিত বাবার এই আসনে মেয়ে রীমা ইসলামকে চেয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ঝরছে আকুতি। পরিচ্ছন্ন রাজনীতিবিদ সৈয়দ আশরাফের আসনটিতে উপনির্বাচনে তাঁর মেয়ে রীমা ইসলামকেই যোগ্য বিকল্প ভাবছেন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ব্যবহারকারীরা। বাবার কফিনের পাশে শোকে বিহ্বল রীমা ইসলামের ছবি শেয়ার দিয়ে জানানো হচ্ছে এই আকুতি।

যোগ্য বাবার যোগ্য সন্তান ছিলেন সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম। সৈয়দ আশরাফুল ইসলামের বাবা বাংলাদেশের প্রথম অস্থায়ী রাষ্ট্রপতি সৈয়দ নজরুল ইসলাম বঙ্গবন্ধু পাকিস্তানের কারাগারে বন্দি থাকায় মুক্তিযুদ্ধকালীন বাংলাদেশ সরকারে বঙ্গবন্ধুর শূন্যতা পূরণ করেছিলেন। এক-এগারোতে সেনা সমর্থিত সরকার আজকের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে গ্রেপ্তার করলে সৈয়দ আশরাফ উনার শূন্যতা পূরণ করেছিলেন।

রীমা ইসলামের মাঝে মানুষ জাতীয় নেতা দাদা শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম এবং নির্লোভ রাজনীতিবিদ সৈয়দ আশরাফুল ইসলামের প্রতিচ্ছবিই যেন দেখতে পাচ্ছেন। সামাজিক যোগাযোগ্য মাধ্যমে ভাইরাল হওয়া পোস্টগুলো অন্তত সেই কথাই বলছে।

আরো পড়ুন: বাবার কফিনের পাশে শোকে বিহ্বল আদরের মেয়ে রীমার কান্না



[মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ি নয়। মতামত একান্তই পাঠকের নিজস্ব। এর সকল দায়ভার বর্তায় মতামত প্রদানকারীর]

এ বিভাগের আরও খবর