কিশোরগঞ্জ নিউজ :: কিশোরগঞ্জকে জানার সুবর্ণ জানালা


কিশোরগঞ্জে রিভলবার, গুলি, চেক, মোটর সাইকেল ও ২৪৭০ পিস ইয়াবাসহ নারী আটক


 স্টাফ রিপোর্টার | ২২ জানুয়ারি ২০১৯, মঙ্গলবার, ১:১৪ | অপরাধ 


কিশোরগঞ্জে রিভলবার, গুলি, ২৫ লাখ টাকার চেক, নগদ টাকা এবং দুই হাজার ৪৭০পিস ইয়াবাসহ ফাতেমা আক্তার বর্ণা (৩১) নামে এক নারী মাদক ব্যবসায়ীকে আটক করেছে র‌্যাব। সোমবার (২১ জানুয়ারি) রাতে র‌্যাব-১৪, সিপিসি-২, কিশোরগঞ্জ ক্যাম্পের কোম্পানী কমান্ডার লে. কমান্ডার, বিএন এম শোভন খানের নেতৃত্বে একটি চৌকস টিম শহরের বত্রিশ মনিপুরঘাট এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাকে আটক করে।

এ সময় আটক হওয়া নারী মাদক ব্যবসায়ী ফাতেমা আক্তার বর্ণার স্বামী দুর্ধর্ষ মাদক সন্ত্রাসী শহীদ মিয়া পালিয়ে যায়।

র‌্যাব-১৪, সিপিসি-২, কিশোরগঞ্জ ক্যাম্পের কোম্পানী কমান্ডার লে. কমান্ডার, বিএন এম শোভন খান জানান, মাদকবিরোধী ধারাবাহিক অভিযানের অংশ হিসেবে তারা সোমবার (২১ জানুয়ারি) রাত সাড়ে ১০টার দিকে কিশোরগঞ্জ শহরের বত্রিশ মনিপুরঘাট এলাকায় অভিযান পরিচালনা করেন। অভিযানের সময় একটি মোটর সাইকেলের দুই আরোহীকে সন্দেহ হলে তল্লাসির জন্য তাদের থামতে বলা হয়।

এ সময় মোটর সাইকেলের চালক মোটর সাইকেল ফেলে দৌড়ে পালিয়ে গেলেও মোটর সাইকেলের অপর আরোহী ফাতেমা আক্তার বর্ণাকে আটক করা হয়। আটকের পর তার হাতে থাকা ব্যাগ থেকে ১০০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করা হয়। এছাড়া তার দেখানো মতে মোটর সাইকেল তল্লাসি করে সিট কভারের নিচ থেকে একটি রিভলবার, তিন রাউন্ড গুলি এবং দুই হাজার ৩৭০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করা হয়।

র‌্যাবের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে পালিয়ে যাওয়া মোটর সাইকেলের চালক তার স্বামী মো. শহীদ মিয়া বলে জানায় ফাতেমা আক্তার বর্ণা। এছাড়া উদ্ধার করার রিভলবার, গুলি এবং দুই হাজার ৩৭০ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট তার স্বামীর বলে জানায়। তারা স্বামী-স্ত্রী উভয়ে মাদক ব্যবসার সাথে যুক্ত বলেও জানায় ফাতেমা আক্তার বর্ণা।

এছাড়া আটক হওয়া মাদক ব্যবসায়ী ফাতেমা আক্তার বর্ণার কাছ থেকে মাদক বিক্রির নগদ ২৫ হাজার ৯শ’ টাকা এবং বিভিন্ন ব্যাংকের ২৫ লাখ টাকার স্বাক্ষরকৃত চেক উদ্ধার করা হয়।

ধারণা করা হচ্ছে, মাদক ক্রয় বিক্রয়ের টাকা চেকের মাধ্যমে আদান প্রদান করা হয়। শহীদ মিয়া মনিপুরঘাট এলাকার একজন চিহ্ণিত মাদক ব্যবসায়ী। তার নামে কিশোরগঞ্জ সদর মডেল থানায় ছয়টি মামলা রয়েছে।

এ ঘটনায় আটক হওয়া ফাতেমা আক্তার বর্ণার বিরুদ্ধে ২০১৮ সালের মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে এবং পালিয়ে যাওয়া মো. শহীদ মিয়ার বিরুদ্ধে অস্ত্র আইনে কিশোরগঞ্জ সদর মডেল থানায় মামলা দায়ের কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন রয়েছে বলেও লে. কমান্ডার, বিএন এম শোভন খান জানিয়েছেন।




[মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ি নয়। মতামত একান্তই পাঠকের নিজস্ব। এর সকল দায়ভার বর্তায় মতামত প্রদানকারীর]

এ বিভাগের আরও খবর