কিশোরগঞ্জ নিউজ :: কিশোরগঞ্জকে জানার সুবর্ণ জানালা


আল-খায়ের-সমকাল উদ্যোগে ঈদের খুশি দুস্থদের


 স্টাফ রিপোর্টার | ৩ জুন ২০১৯, সোমবার, ৪:১৫ | বিশেষ সংবাদ 


শুধু ভোগ নয়, ত্যাগের মধ্য দিয়েই ঈদের প্রকৃত আনন্দ উপভোগ করা যায়। সুবিধাবঞ্চিত দরিদ্র মানুষের মুখে হাসি ফোটাতে পারার আনন্দ মানুষকে সব-সময়ই তৃপ্ত করে। সোমবার (৩ জুন) ঈদুল ফিতরের আনন্দ ভাগাভাগি করার জন্য আল-খায়ের ফাউন্ডেশন ও কিশোরগঞ্জ সমকাল সুহৃদের ব্যবস্থাপনায় দুস্থ ও হতদরিদ্রদের মাঝে ঈদ-সামগ্রী বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন কিশোরগঞ্জের পুলিশ সুপার মো. মাশরুকুর রহমান খালেদ বিপিএম (বার)।

বিশেষ অতিথি অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) মোহাম্মদ হাবিবুর রহমান বলেন, ইতোমধ্যে আমরা মধ্যম আয়ের দেশে উন্নীত হয়েছি। অদূর ভবিষ্যতে আমাদের দেশে হত-দরিদ্র মানুষ খুঁজে পাওয়া যাবে না। তিনি আল খায়ের ফাউন্ডেশন ও দৈনিক সমকালের দরিদ্র বান্ধব এ কর্মসূচির ভূয়সী প্রশংসা করেন।

শহরের বিয়াম ল্যাবরেটরি স্কুল প্রাঙ্গণে আয়োজিত ঈদ-উপহার সামগ্রী বিতরণ অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন সমকালের কিশোরগঞ্জের নিজস্ব প্রতিবেদক সাইফুল হক মোল্লা দুলু।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বিশিষ্ট ছড়াকার ও মুক্তিযুদ্ধের গবেষক জাহাঙ্গীর আলম জাহান, সমাজসেবক সৈয়দ রেজওয়ানউল্লাহ বাশার, সাংবাদিক সাইফুল মালেক চৌধুরী, মনিরুজ্জামান খান চৌধুরী সোহেল, আবদুল্লাহ আল মামুন পলাশ, সুহৃদ সহ-সভাপতি আসলামুল হক আসলাম, জহিরুল ইসলাম, ওমর ফারুক প্রমুখ।

অনুষ্ঠান শেষে শতাধিক দুস্থ ও অসহায় নারী-পুরুষের মধ্যে শাড়ি, লুঙ্গি, সেমাই. দুধ, চিনি, কিসমিস. গরম মসলা, সাবান ইত্যাদিসহ জনপ্রতি এক হাজার টাকার ঈদ-সামগ্রী বিতরণ করা হয়।

গাঙ্গাইল গ্রামের সাহিদা বেগম, নূরজাহান, আশরাফুল ও কাতিয়ারচরের কাঞ্চন মিয়া ঈদ-সামগ্রী পেয়ে ব্যাপক উচ্ছ্বাস প্রকাশ করে বলেন, এবারের ঈদে সংসারে দু’পয়সা আয়-রোজগার ছিল না। এই পণ্য সামগ্রী পেয়ে দু’চোখে আলোর সম্ভাবনা দেখতে পাচ্ছি। ঈদের আনন্দ কিছুটা হলেও পরিবারকে নিয়ে উপভোগ করার সুযোগ হয়েছে।

তারা সকলেই আয়োজক কর্তৃপক্ষের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করে হাসি মুখে ঘরে ফিরে যান।




[মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ি নয়। মতামত একান্তই পাঠকের নিজস্ব। এর সকল দায়ভার বর্তায় মতামত প্রদানকারীর]

এ বিভাগের আরও খবর