কিশোরগঞ্জ নিউজ :: কিশোরগঞ্জকে জানার সুবর্ণ জানালা


পাকুন্দিয়ায় সড়কে ভেঙে হেলে পড়েছে গাছ, দুর্ঘটনার আশঙ্কা


 স্টাফ রিপোর্টার | ৪ জুলাই ২০১৯, বৃহস্পতিবার, ৭:৫৩ | পাকুন্দিয়া  


পাকুন্দিয়া উপজেলার মঠখোলা-থানাঘাট সড়কের হাজী জাফর আলী কলেজ সংলগ্ন এমএ বারী স্বাস্থ্য কেন্দ্রের সামনে একটি রেইনট্রি গাছ মাঝখানে ভেঙে সড়কের উপর হেলে পড়েছে। বেশ কিছু দিন ধরে গাছটি এভাবে বিপজ্জনক অবস্থায় হেলে পড়ে থাকলেও এ ব্যাপারে কোন পদক্ষেপ নিচ্ছে না কর্তৃপক্ষ। এতে যে কোন সময় দুর্ঘটনা ঘটনার আশঙ্কা করছেন পথচারীসহ স্থানীয়রা।

সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, মঠখোলা-থানাঘাট সড়ক দিয়ে কিশোরগঞ্জ সদর, নান্দাইল, হোসেনপুর ও পাশর্^বর্তী কটিয়াদী উপজেলাসহ বিভিন্ন এলাকার শত শত বাস, ট্রাক, পিকআপসহ ছোটবড় অনেক যান চলাচল করছে। এ সড়কের এমএ বারী স্বাস্থ্য কেন্দ্রের সামনে একটি বিশালাকার রেইনট্রি গাছ মাঝখানে ভেঙে সড়কের ওপর হেলে পড়েছে।

দিনের বেলায় পণ্যবাহী বড় গাড়িগুলো সতর্কভাবে চললেও রাতে আটকে যাচ্ছে কিংবা গাছ ঘেঁষে যাচ্ছে। এতে অনেকটা ঝুঁকি নিয়েই যান চলাচল করতে হচ্ছে চালকদের।

মোস্তকা কামাল নামে একজন পথচারী জানান, তিনি প্রায়ই এ সড়ক দিয়ে যাতায়াত করে থাকেন। দীর্ঘদিন ধরে গাছটি এভাবে ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থায় হেলে পড়ে থাকলেও কর্তৃপক্ষের নজরে আসছে না।

স্থানীয় বাসিন্দা ফজলুল হক বলেন, গাছটি মাঝখানে ভেঙে রোডের উপরে ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থায় হেলে রয়েছে। রাতে প্রায় সময়ই বড় গাড়ি ওই গাছে আটকে যাচ্ছে। গাছটি পুরোদমে ভেঙ্গে পড়ে যে কোন সময় বড় ধরনের দুর্ঘটনা ঘটার আশঙ্কা রয়েছে।

নূর উদ্দিন নামে স্থানীয় অপর এক ব্যক্তি বলেন, সরকারি গাছ। কেউ কাটলে উল্টো মামলা খেতে হবে। এই ভয়ে গাছটি কেটে সরাতে কেউ সাহস পাচ্ছে না।

এগারসিন্দুর ইউপি চেয়ারম্যান মো. মতিউর রহমান বলেন, গাছটি বন বিভাগের। তাই কাটা সম্ভব হচ্ছে না। বন বিভাগকে ঝুঁকিপূর্ণ গাছটির ব্যাপারে জানানো হবে।

ঝুঁকিপূর্ণ অবস্থায় সড়কে হেলে পড়া গাছের বিষয়টি উপজেলা নির্বাহী অফিসার (ইউএনও) মোহাম্মদ মোকলেছুর রহমানের নজরে আনা হলে এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে তিনি জানান।




[মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ি নয়। মতামত একান্তই পাঠকের নিজস্ব। এর সকল দায়ভার বর্তায় মতামত প্রদানকারীর]

এ বিভাগের আরও খবর