কিশোরগঞ্জ নিউজ :: কিশোরগঞ্জকে জানার সুবর্ণ জানালা


ভণ্ডপীরের বিচার দাবিতে তৌহিদী জনতার বিক্ষোভে উত্তাল ভৈরব


 সোহেল সাশ্রু, ভৈরব | ৫ জানুয়ারি ২০২০, রবিবার, ২:৪৬ | ভিডিও খবর  


পবিত্র মক্কা-মদিনাকে নিয়ে তুচ্ছ তাচ্ছিল্য করে নিজের দরবারকে হেরেম ঘোষণা দেওয়াসহ বিভিন্ন কুফরি বক্তব্য দেওয়ায় কিশোরগঞ্জের ভৈরবে আবুল বাশার আল কাদরী নামে এক ভণ্ডপীরের বিরুদ্ধে মানববন্ধন করেছেন ভৈরবের ইমাম ওলামা ও সর্বস্তরের তৌহিদী জনতা।

রোববার (৫ জানুয়ারি) সকালে ভৈরব পৌর এলাকার নিউটাউন মোড়ে ঘণ্টাব্যাপী চলে এ মানববন্ধন। এ সময় ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের মুক্তিযুদ্ধের স্মৃতি ভাস্কর্য ভৈরব দুর্জয়মোড় এলাকা জনসমুদ্রে পরিণত হয়।

এতে ঢাকা-সিলেট ও ভৈরব-ময়মনসিংহ আঞ্চলিক সড়কে তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়। যানবাহনে থাকা যাত্রীদের ভোগান্তি পোহাতে হয়। 

আবুল বাশার উপজেলার আগানগর ইউনিয়নের উমানাথপুর গ্রামের গুল-এ মদিনা দরবার শরীফের কথিত পীর।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, আবুল বাশার পবিত্র হজসহ ইসলামি অনুশাসনের বিভিন্ন বিষয় নিয়ে মনগড়া, মিথ্যা, ভিত্তিহীন এবং ধর্মীয় মূল্যবোধে আঘাত করে বক্তব্য দিয়েছে। পবিত্র হজকে কটুক্তি করেছে। যা ইসলাম ধর্মে জঘন্যতম অপরাধ। তাই আমরা আবুল বাশারের অনতিবিলম্বে গ্রেফতারসহ ফাঁসির দাবি জানাই।

এ সময় উত্তেজিত জনতা আবুল বাশারের কুশপুত্তলিকায় জুতাপেটা করেন। পরে বাসস্ট্যান্ডের দুর্জয় মোড় এলাকা থেকে মিছিল করে কিশোরগঞ্জ জেলা প্রশাসক বরাবর একটি স্মারক লিপি জমা দেন উপজেলা নির্বাহী অফিসারের নিকটে।

এছাড়া পবিত্র হজ নিয়ে মনগড়া, মিথ্যা, ভিত্তিহীন বক্তব্য দেয়ায় বৃহস্পতিবার (২ জানুয়ারি) এই পীরের বিরুদ্ধে কিশোরগঞ্জ জজকোর্টের আইনজীবী অ্যাডভোকেট আমিনুল ইসলাম মামুন থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন।

উল্লেখ্য, গত কয়েকদিন আগে ওই পীর হবিগঞ্জের একটি ওয়াজ মাহফিলে পবিত্র হজসহ ইসলামি অনুশাসনের বিভিন্ন বিষয় নিয়ে মনগড়া, মিথ্যা, ভিত্তিহীন এবং ধর্মীয় মূল্যবোধে আঘাত করে বক্তব্য রাখেন।

বক্তব্যে তিনি বলেন, ‘আল্লাহ গো, ওমরা করতে যাগা। তোর বাপ লাগেনি ওমরা? মক্কায় না গিয়ে ভৈরবের গুল-এ মদিনা দরবারে গেলেই হজ্বের সওয়াব পাবে এবং তোদের গুনাহ মাফ হয়ে যাবে। দরবারে ঢুকলেই মানুষের গুনাহ মাফ হয়, আশা পূরণ হবে, অভাব দূর হয়। গুল-এ মদিনা দরবার হলো গুনাহ মাফের কেন্দ্র। আল্লাহ-রাসূল থাহে। মুর্শিদের টিকিট ছাড়া কবরে গেলে খবর আছে।’

তার এই বক্তব্য সহীহ সুন্নাহ নামের একটি ইউটিউব একাউন্ট থেকে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়লে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমসহ বিভিন্ন মহলে তার বিরুদ্ধে নিন্দা ও প্রতিবাদের ঝড় উঠে।

ভিডিও:




[মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ি নয়। মতামত একান্তই পাঠকের নিজস্ব। এর সকল দায়ভার বর্তায় মতামত প্রদানকারীর]

এ বিভাগের আরও খবর