কিশোরগঞ্জ নিউজ :: কিশোরগঞ্জকে জানার সুবর্ণ জানালা


নিকলীতে এইচএসসি পরীক্ষা দিতে গিয়ে হত্যা মামলার আসামি আটক


 খাইরুল মোমেন স্বপন, স্টাফ রিপোর্টার, নিকলী | ১৬ এপ্রিল ২০১৯, মঙ্গলবার, ৫:৩৮ | নিকলী  


নিকলীতে চলমান উচ্চ মাধ্যমিকের (এইচএসসি) তথ্য ও প্রযুক্তি পরীক্ষা দিতে গিয়ে রুবেল মিয়া (২৩) নামে এক হত্যা মামলার আসামি ও সাজ্জাদ হোসেন জয় (২২) নামে এক প্রক্সিদাতা আটক হয়েছে। তবে প্রক্সি পরীক্ষার্থী সাজ্জাদ হোসেন জয়কে অভিভাবকের মুচলেকায় ছেড়ে দেওয়া হলেও হত্যা মামলার আসামি রুবেল মিয়াকে গ্রেপ্তার করেছে নিকলী থানা পুলিশ।

মঙ্গলবার (১৬ই এপ্রিল) নিকলী জিসি পাইলট মডেল সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রে এই ঘটনাটি ঘটে।

হত্যা মামলার আসামি রুবেল মিয়া নিকলী উপজেলার জারইতলা ইউনিয়নের কামালপুর গ্রামের আসকর আলীর ছেলে। সে ২০১৮ সালের পহেলা নভেম্বর নিকলী থানায় দায়ের করা একটি হত্যা মামলার আসামি।

অন্যদিকে প্রক্সি পরীক্ষার্থী সাজ্জাদ হোসেন জয় পার্শ্ববর্তী কটিয়াদী উপজেলার করগাঁও ইউনিয়নের বাসিন্দা।

নিকলী থানা সূত্র জানায়, বিগত ২০১৮ সালের ৩০শে অক্টোবর উপজেলার জারইতলা কামালপুর গ্রামের অবসরপ্রাপ্ত সেনা সার্জেন্ট মো. শহীদুল্লাহ খুন হন। ১লা নভেম্বর নিহত শহীদুল্লার স্ত্রী মনোয়ারা বাদী হয়ে নিকলী থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। এই মামলার ৫ নং আসামি রুবেল।

গোপন সংবাদের ভিত্তিতে মঙ্গলবার (১৬ই এপ্রিল) পরীক্ষা শেষে রুবেলকে কেন্দ্রের বাইরে থেকে আটক করা হয়।

নিকলী জিসি পাইলট মডেল সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্র সচিব প্রভাষক রিটন সরকার জানান,  মঙ্গলবার (১৬ই এপ্রিল) সকালে এইচএসসির তথ্য ও প্রযুক্তি পরীক্ষা চলাকালে ফুরকান মিয়ার (রোল-৬৯০৬৪৯) স্থলে সাজ্জাদ হোসেন জয় নামের এক যুবক পরীক্ষা দিতে আসে। কর্তব্যরত শিক্ষকদের সন্দেহ হলে জয়কে আটক করেন তারা। পরে কেন্দ্র সচিবের নির্দেশনায় ফুরকান মিয়ার পরীক্ষা বাতিল করা হয়। সাজ্জাদ হোসেন জয়কে অভিভাবকের মুচলেকায় ছেড়ে দেওয়া হয়।

প্রভাষক রিটন সরকার আরও জানান, ২০১৮ সালের পরীক্ষায় রুবেল ও ফুরকান দুজনেই তথ্য ও প্রযুক্তি বিষয়ে অকৃতকার্য ছিলো। এ বছর শুধু এই বিষয়েরই পরীক্ষার্থী ছিলো দুজন।




[মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ি নয়। মতামত একান্তই পাঠকের নিজস্ব। এর সকল দায়ভার বর্তায় মতামত প্রদানকারীর]

এ বিভাগের আরও খবর