কিশোরগঞ্জ নিউজ :: কিশোরগঞ্জকে জানার সুবর্ণ জানালা


কিশোরগঞ্জে আজ শুরু হচ্ছে ৭ দিনব্যাপী স্বাধীনতা বইমেলা


 স্টাফ রিপোর্টার | ২৫ মার্চ ২০১৯, সোমবার, ১১:০৮ | কিশোরগঞ্জ সদর 


‘প্রতিদিন বইয়ের সাথে’ প্রতিপাদ্য নিয়ে কিশোরগঞ্জে প্রথমবারের মতো বেসরকারি উদ্যোগে অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে সপ্তাহব্যাপী ‘স্বাধীনতা বইমেলা ২০০৯’। সোমবার (২৫ মার্চ) বিকাল ৫টায় শহরের আখড়াবাজার ব্রিজ চত্বরে মেলা উদ্বোধন করবেন বিশিষ্ট লেখক প্রফেসর ডা. আনম নৌশাদ খান।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি থাকবেন জেলা প্রশাসক মো. সারওয়ার মুর্শেদ চৌধুরী।

স্বাধীনতা যুদ্ধে আত্মোৎসর্গকারী শহিদদের স্মৃতির প্রতি সম্মান জানিয়ে এ মেলার আয়োজন করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন ‘স্বাধীনতা বইমেলা পরিচালনা পর্ষদ’ এর আহ্বায়ক প্রবীণ সাংবাদিক মু আ লতিফ।

তিনি জানান, বইমেলার সব ধরনের প্রস্তুতি নেয়া হয়ে গেছে। কিশোরগঞ্জের সৃজনশীল লেখক, কবি, ছড়াকার, সাংবাদিক এবং সাংস্কৃতিক কর্মীরা স্বাধীনতা বইমেলার আয়োজনকে স্বাগত জানিয়েছেন। জেলা প্রশাসন ও জেলা পুলিশের পক্ষ থেকেও মেলা আয়োজনে নিরাপত্তাসহ সর্বাত্মক সহযোগিতা দেয়া হবে।

আয়োজকেরা জানিয়েছেন, বইমেলা চলবে আগামী ৩১শে মার্চ পর্যন্ত। প্রতিদিন দুপুর ২টা থেকে রাত ১০টা পর্যন্ত মেলা সর্বসাধারণের জন্য উন্মুক্ত থাকবে। তবে ২৬শে মার্চ সকাল ১০টা থেকে রাত ১০টা পর্যন্ত মেলা চলবে। মেলায় কিশোরগঞ্জ শহরের বড় বড় বইয়ের দোকানের প্রায় সবাই স্টল বরাদ্দ নিয়েছে।

এ ছাড়াও মেলায় ঢাকার ১০টি প্রকাশনা সংস্থা অংশ নিচ্ছে। উল্লেখযোগ্য প্রকাশনা সংস্থার মধ্যে রয়েছে শ্রাবণ প্রকাশনী, কালো, বাবুই, প্রিয়মুখ, সপ্তডিঙা, অক্ষরবৃত্ত, প্রতিভা প্রকাশ ও বাংলার প্রকাশন।

মেলায় প্রতিদিন নতুন বইয়ের মোড়ক উন্মোচন করা হবে। চলবে আলোচনা সভা। স্কুল-কলেজ ও মাদরাসার ছাত্র-ছাত্রীদের জন্য থাকবে চিত্রাঙ্কন, কবিতা আবৃত্তি, বইপাঠসহ বিভিন্ন প্রতিযোগিতা।

স্বাধীনতা বইমেলা পরিচালনা পর্ষদের সদস্য সচিব সাংবাদিক সাইফুল হক মোল্লা দুলু বলেন, ‘প্রথমবারের মতো চ্যালেঞ্জ নিয়ে বেসরকারি উদ্যোগে আমরা এই বইমেলা শুরু করেছি। আগামীতে এই বইমেলার পরিধি ও প্রসার আরো বাড়ানো হবে ইনশাআল্লাহ। আমরা আশা করছি, প্রথম দিন থেকেই মেলায় বিপুল লোক সমাগম ঘটবে।’




[মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ি নয়। মতামত একান্তই পাঠকের নিজস্ব। এর সকল দায়ভার বর্তায় মতামত প্রদানকারীর]

এ বিভাগের আরও খবর