কিশোরগঞ্জ নিউজ :: কিশোরগঞ্জকে জানার সুবর্ণ জানালা


সংসদ সদস্য লিপি’র কাছ থেকে পরিবার পরিকল্পনা পরামর্শ পেয়ে আপ্লুত গ্রামের নারীরা



 স্টাফ রিপোর্টার | ১০ ডিসেম্বর ২০২০, বৃহস্পতিবার, ৪:৩৩ | স্বাস্থ্য 



করোনাকালীন অনাকাঙ্খিত গর্ভধারণ রোধ, পুষ্টি, স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনাসেবা সম্পর্কে গ্রামের নারীদের ধারণা দিতে কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলার যশোদল ইউনিয়নের বীর দামপাড়া গ্রামে নিজ বাড়িতে ‘জনসচেতনতামূলক উঠান বৈঠকে’ অংশ নিলেন বাংলাদেশের প্রথম অস্থায়ী রাষ্ট্রপতি শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলামের কন্যা কিশোরগঞ্জ-১ আসনের সংসদ সদস্য ডা. সৈয়দা জাকিয়া নূর লিপি।

গত ৮ ডিসেম্বর পরিবার পরিকল্পনা সেবা ও প্রচার সপ্তাহের শেষ দিনে সচেতনতামূলক এই কার্যক্রমে প্রধান অতিথি হিসেবে ঢাকা থেকে অনলাইনে গ্রামের নারীদের সাথে যুক্ত হন তিনি।

কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কার্যালয় আয়োজিত এ অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. আব্দুল কাদির মিয়া।

অনুষ্ঠান পরিচালনায় ছিলেন উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা মোহাম্মদ মিজানুর রহমান (বিসিএস-এফপি)।

এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন উপজেলা মহিলা ভাইস-চেয়ারম্যান মাছুমা আক্তার, ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান ইমতিয়াজ আহমেদ রাজন, ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি হাজী শফিকুল হক বাবুল, সাবেক জেলা মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার এবি সিদ্দিক প্রমুখসহ ইউনিয়নের পরিবার পরিকল্পনা বিভাগের কর্মকর্তা-কর্মচারিরা।

উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, এই অনুষ্ঠানে যুক্ত হয়ে সংসদ সদস্য লিপি তার নিজ গ্রামের নারীদের স্বাস্থ্য শিক্ষা, ব্যক্তিগত পরিষ্কার পরিচ্ছন্নতা, জন্মনিয়ন্ত্রণ পদ্ধতি, মাতৃস্বাস্থ্য ও নিরাপদ মাতৃত্ব, খাদ্য ও পুষ্টি বিষয়ে সঠিক জ্ঞান, ভিটামিন-এ ও টিকার প্রয়োজনীয়তা ও শিশুকে বুকের দুধ খাওয়ানোর গুরুত্ব এবং কৃমির সংক্রমণ সম্পর্কে সচেতন করেন।

এছাড়াও করোনাকালীন অনাকাঙ্খিত গর্ভধারণ রোধ ও কিশোর-কিশোরীদেরকে প্রজনন স্বাস্থ্য বিষয়ে পরামর্শ দেন তিনি।

গ্রামের নারীরা অনলাইনে তাদের প্রিয় সংসদ সদস্যকে পেয়ে এবং তার পরামর্শে আপ্লুত হন।

অনুষ্ঠানে পরিবার পরিকল্পনা কার্যালয়ের পক্ষ থেকে নববিবাহিত দম্পতি ও নবজাতকদের জন্য উপহার সামগ্রী এবং নারীদের মধ্যে বিনামূল্যে মাস্ক, হ্যান্ড স্যানিটাইজিং সাবান ও চার প্রকারের ঔষধ দেয়া হয়।

এ বছরও কিশোরগঞ্জ সদর উপজেলায় সারাদেশে তিন দিনব্যাপী (৬-৮ ডিসেম্বর) সেবা ও প্রচার সপ্তাহ অত্যন্ত উৎসাহ, উদ্দীপনা এবং উৎসবমূখর পরিবেশে জাঁকজমকপূর্ণ ভাবে পালন করা হয়।

উল্লেখ্য, টার্গেট অর্জনে এগিয়ে থাকায় গত ৪ বছর থেকে এই উপজেলা জেলায় ১ম স্থান অর্জন করার কৃতিত্ব দেখিয়েছে।


[মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ি নয়। মতামত একান্তই পাঠকের নিজস্ব। এর সকল দায়ভার বর্তায় মতামত প্রদানকারীর]

এ বিভাগের আরও খবর