কিশোরগঞ্জ নিউজ :: কিশোরগঞ্জকে জানার সুবর্ণ জানালা


মিঠামইন সোনালী ব্যাংকে ব্যবসায়িক সাফল্য উদযাপন


 স্টাফ রিপোর্টার | ৭ জানুয়ারি ২০২১, বৃহস্পতিবার, ৫:২৬ | অর্থ-বাণিজ্য 


কিশোরগঞ্জের মিঠামইনে সোনালী ব্যাংক মিঠামইন শাখার উদ্যোগে ব্যবসায়িক সাফল্য উদযাপন ও ব্যবসায়ীদের সঙ্গে মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। বুধবার (৬ জানুয়ারি) এই মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়।

সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন মিঠামইন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ্ব আছিয়া আলম এবং বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার প্রভাংশু সোম মহান।

ব্যাংকের শাখা ব্যবস্থাপক মো. সোহেল রানার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য রাখেন মিঠামইন থানার অফিসার ইন চার্জ (ওসি) মো. জাকির রব্বানী, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সমীর কুমার বৈষ্ণব, সহ-সভাপতি সাহজাহান মাস্টার, হাজি তায়েব উদ্দিন উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক সুভাষ চন্দ্র বৈষ্ণব, ব্যবসায়ী মোশাররফ হোসেন ডালিম ও চঞ্চল সরকার।

উল্লেখ্য, সোনালী ব্যাংক সিইও এন্ড এমডি মো. আতাউর রহমান প্রধানের সুদক্ষ নেতৃত্ব ও কর্ম পরিকল্পনায় ইতিহাস সৃষ্টি করে ২০২০ সালে পরিচালন মুনাফায় সবার শীর্ষে যেতে সক্ষম হয়েছে।

২০২০ সালে করোনা প্রকোপের মধ্যেও সোনালী ব্যাংক ২১৭৫ কোটি টাকা অপারেটিং মুনাফা এবং ১ লক্ষ ২৫ হাজার কোটি টাকার ডিপোজিট অর্জন করে।

বাংলাদেশের রাষ্ট্র মালিকানাধীন সর্ববৃহৎ বাণিজ্যিক ব্যাংক সোনালী ব্যাংক লিমিটেড। বাংলাদেশ ব্যাংক্স (ন্যাশনালাইজেশন) অর্ডার ১৯৭২, প্র প্রসঙ্গত, রাষ্ট্রপতির অধ্যাদেশ নম্বর ২৬, ১৯৭২ অনুসারে ন্যাশনাল ব্যাংক অব পাকিস্তান, ব্যাংক অব বাহ্ওয়ালপুর এবং প্রিমিয়ার ব্যাংক নিয়ে ‘সোনালী ব্যাংক’ প্রতিষ্ঠা লাভ করে|

বাংলাদেশের অন্যতম প্রধান ও বৃহত্তম সোনালী ব্যাংক লিমিটেড বর্তমানে ১২২৬টি শাখার মাধ্যমে প্রায় ২০ হাজার কর্মকর্তা-কর্মচারী নিয়ে পরিচালিত হচ্ছে এবং কম-বেশী ২ কোটি বিভিন্ন ধরনের গ্রাহকের মধ্যে বাংলাদেশের আর্থ-সামাজিক অবস্থা উন্নয়নে কাজ করে করছে।

প্রসঙ্গত, সোনালী ব্যাংকের পক্ষ হতে জনসাধারণকে সঞ্চয়ে উদ্বুদ্ধকরণে বিভিন্ন ধরনের আমানত প্রোডাক্ট প্রবর্তন করা হয়েছে। দেশের ব্যবসা বাণিজ্যের উন্নয়ন ঘটিয়ে অর্থনৈতিক সমৃদ্ধি অর্জনে কৃষি ও শিল্প প্রকল্প ঋণ, আমদানী-রফতানী ঋণ, কৃষিঋণ, ক্ষুদ্র ব্যবসা ঋণ, এসএমই ঋণ, ভোগ্যপণ্য ঋণসহ বিভিন্ন ঋণ স্কীমের মাধ্যমে শহর ও গ্রামাঞ্চলের জনসাধারণকে সহায়তা প্রদান করে আসছে।

সোনালী ব্যাংক জনসাধারণের দৈনন্দিন ব্যাংকিং কার্যক্রম পরিচালনার পাশাপাশি যেসব স্থানে বাংলাদেশ ব্যাংকের শাখা নেই সেসব স্থানে সরকারের পক্ষে সরকারি ট্রেজারী কার্যক্রম পরিচালনা করে।

সোনালী ব্যাংক লিমিটেড সরকারি-বেসরকারি কর্মকর্তা-কর্মচারীদের পেনশন ও অবসরভাতা প্রদান, সরকারী ও বেসরকারী স্কুল, কলেজ, মাদ্রাসা ইত্যাদি প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের বেতনভাতা প্রদান, ছাত্র-ছাত্রীদের বৃত্তি প্রদান, সামাজিক নিরাপত্তাজনিত বিভিন্ন ভাতা প্রদান, সরকারি সঞ্চয়পত্র ক্রয়-বিক্রয়, সরকারি খাদ্যশস্য ক্রয় বিল পরিশোধ, বিভিন্ন সেবামূলক প্রতিষ্ঠানের বিল গ্রহণ, সরকারি রাজস্ব আদায় কার্যক্রম, হজ্জ্ব ও জাকাত ফান্ডের অর্থ গ্রহণসহ সামাজিক কর্মকাণ্ডের মাধ্যমে আপামর জনগোষ্ঠীকে সহায়তা করে আসছে।




[মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ি নয়। মতামত একান্তই পাঠকের নিজস্ব। এর সকল দায়ভার বর্তায় মতামত প্রদানকারীর]

এ বিভাগের আরও খবর